রবিবার , ২৮ নভেম্বর ২০২১
সর্বশেষ সংবাদ
লভ্যাংশ ঘোষণা
লভ্যাংশ ঘোষণা

একনজরে দেখে নিন আট কোম্পানির লভ্যাংশ। ২১ অক্টোবর ২০২১

 পপূলেশন ডেস্কঃ পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৮ কোম্পানির লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে। এর মধ্যে চমক দেখিয়েছে বেক্সিমকো লিমিটেড ও স্কয়ার ফার্মা এবং স্কয়ার টেক্সটাইল। এর মধ্যে বিবিএস ক্যাবলসে ও শাইনপুকুরের লভ্যাংশে হতাশ হয়েছে বিনিয়োগকারীরা। কোম্পানিগুলো হলো: বেক্সিমকো লিমিটেড, বেক্সিমকো ফার্মা, ন্যাশনাল পলিমার, স্কয়ার টেক্সটাইলস, স্কয়ার ফার্মা, বিবিএস ক্যাবলস, বিবিএস লিমিটেড এবং শাইনপুকুর সিরামিকস।

বেক্সিমকো লিমিটেড: পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত কোম্পানি বেক্সিমকো লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ৩৫ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই নগদ লভ্যাংশ। বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের সভায় ৩০ জুন ২০২১ সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৭ টাকা ৫৩ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৫১ পয়সা। সেই হিসাবে সমাপ্ত অর্থবছরে কোম্পানিটির মুনাফা বেড়েছে ৭ টাকা ২ পয়সা বা ১৪ গুন। ২০২১ সালের ৩০ জুন কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৭৮ টাকা ২৮ পয়সা।

লভ্যাংশ অনুমোদনের জন্য আগামী ২৩ ডিসেম্বর বেলা সাড়ে ১২টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) করবে কোম্পানিটি। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ২২ নভেম্বর।

বেক্সিমকো ফার্মা: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ওষুধ ও রসায়ন খাতের কোম্পানি বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। আলোচিত বছরের জন্য কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ৩৫ শতাংশ লভ্যাংশ দেবে।

এর পুরোটা-ই নগদ লভ্যাংশ। আজ বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের বৈঠকে সর্বশেষ হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদনের পর তা প্রকাশ করা হয়। কোম্পানি সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে।

সর্বশেষ হিসাববছরে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ঊচঝ) হয়েছে ১১ টাকা ৪৯ পয়সা। আগের বছর ইপিএস হয়েছিল ৭ টাকা ৮৮ পয়সা। গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৮৩ টাকা ১ পয়সা। আগামী ২৩ ডিসেম্বর ডিজিটাল প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ২২ নভেম্বর।

ন্যাশনাল পলিমার: পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত প্রকৌশল খাতের কোম্পানি ন্যাশনাল পলিমারের পরিচালনা পর্ষদ শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১০ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই নগদ লভ্যাংশ। বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের সভায় ৩০ জুন ২০২১ সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২ টাকা ৮২ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ২ টাকা ৫০ পয়সা (রাইট ইস্যুর জন্য রিস্টেটেড)।

২০২১ সালের ৩০ জুন কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৩০ টাকা ৪৯ পয়সা। লভ্যাংশ অনুমোদনের জন্য আগামী ২২ ডিসেম্বর সকাল ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) করবে কোম্পানিটি। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১৪ নভেম্বর।

স্কয়ার টেক্সটাইলস: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বস্ত্র খাতের কোম্পানি স্কয়ার টেক্সটাইলস লিমিটেড গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। আলোচিত বছরের জন্য কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ২০ শতাংশ লভ্যাংশ দেবে। এর পুরোটা-ই নগদ লভ্যাংশ। আজ বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের বৈঠকে সর্বশেষ হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদনের পর তা প্রকাশ করা হয়। কোম্পানি সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে।

সর্বশেষ হিসাববছরে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ঊচঝ) হয়েছে ৩ টাকা ৪১ পয়সা। আগের বছর ইপিএস হয়েছিল ২৭ পয়সা। গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩৮ টাকা ৬৯ পয়সা। আগামী ১৫ ডিসেম্বর ডিজিটাল প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে ব্যাংকটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ২২ নভেম্বর।

স্কয়ার ফার্মা: পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত ওষুধ ও রসায়ন খাতের কোম্পানি স্কয়ার ফার্মার পরিচালনা পর্ষদ শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ৬০ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এর পুরোটাই নগদ লভ্যাংশ। বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির ৫৫তম পরিচালনা পর্ষদের সভায় ৩০ জুন ২০২১ সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ১৭ টাকা ৯৯ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ১৫ টাকা ০৭ পয়সা। আর ২০২১ সালের ৩০ জুন কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ১০২ টাকা ৫৪ পয়সা। এই লভ্যাংশ অনুমোদনের জন্য আগামী ১৫ ডিসেম্বর বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) করবে কোম্পানিটি। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ২২ নভেম্বর।

বিবিএস ক্যাবলস: পুঁজিবাজারের তালিকাভুক্ত প্রকৌশল খাতের কোম্পানি বিবিএস ক্যাবলস লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১০.৫ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এরমধ্যে বোনাস লভ্যাংশ ০৫ শতাংশ এবং নগদ লভ্যাংশ ১০ শতাংশ।তবে কোম্পানিটির ঘোষিত লভ্যাংশে হতাশ হয়েছে বিনিয়োগকারীরা।

কোম্পানিটির পুঁজিবাজারে তালিকাভুটির পর থেকে প্রতি বছর লভ্যাংশ ও মুনাফায় ধস নামছে। কোম্পানিটির আর্থিক প্রতিবেদন খতিয়ে দেখার দাবী জানিয়েছেন বিনিয়োগকারীরা। বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের সভায় ৩০ জুন ২০২১ সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪ টাকা ৮৪ পয়সা। গত অর্থবছরের একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৬ টাকা ০৫ পয়সা। আর ২০২১ সালের ৩০ জুন কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৩৩ টাকা ৫০ পয়সা। কোম্পানিটি ২০২০ সালে শেয়ার প্রতি ৬ টাকা ৬৬ পয়সা আয় করে ১০ শতাংশ বোনাস ও ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। ২০১৯ সালেও লভ্যাংশ ছিল সম পরিমাণ, ওই বছর শেয়ার প্রতি আয় ছিল ৮ টাকা ১৭ পয়সা। ২০১৮ সালে শেয়ার প্রতি ৮ টাকা ৮ পয়সা আয় করে ১০ শতাংশ নগদের পাশাপাশি ১৫ শতাংশ বোনাস শেয়ার দিয়েছিল কোম্পানিটি।

২০১৭ সালে তালিকাভুক্তির বছরে শেয়ার প্রতি আয় ছিল ৪ টাকা ১২ পয়সা। প্রথম বছরে শেয়ার প্রতি ৫০ পয়সা নগদের পাশাপাশি ১৫ শতাংশ বোনাস পেয়েছিলেন বিনিয়োগকারীরা। কোম্পানিটি ২০২০ সালে শেয়ার প্রতি ৬ টাকা ৬৬ পয়সা আয় করে ১০ শতাংশ বোনাস ও ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। ২০১৯ সালেও লভ্যাংশ ছিল সম পরিমাণ, ওই বছর শেয়ার প্রতি আয় ছিল ৮ টাকা ১৭ পয়সা। ২০১৮ সালে শেয়ার প্রতি ৮ টাকা ৮ পয়সা আয় করে ১০ শতাংশ নগদের পাশাপাশি ১৫ শতাংশ বোনাস শেয়ার দিয়েছিল কোম্পানিটি।

২০১৭ সালে তালিকাভুক্তির বছরে শেয়ার প্রতি আয় ছিল ৪ টাকা ১২ পয়সা। প্রথম বছরে শেয়ার প্রতি ৫০ পয়সা নগদের পাশাপাশি ১৫ শতাংশ বোনাস পেয়েছিলেন বিনিয়োগকারীরা। কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সম্পদমূল্য কিছুটা বেড়েছে। গত ৩০ জুন এই সম্পদমূল্য ছিল ৩৩ টাকা ৫০ পয়সা। আগের বছর তা ছিল ৩২ টাকা ৫২ পয়স। লভ্যাংশ সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ১৪ নভেম্বর। অর্থাৎ সেদিন যাদের হাতে শেয়ার থাকবে, তারাই এই লভ্যাংশ পাবে। আগামী ২০ ডিসেম্বর বার্ষিক সাধারণ সভায় লভ্যাংশ চূড়ান্ত হবে।

বিবিএস লিমিটেড: শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত প্রকৌশল খাতের কোম্পানি বিবিএস লিমিটেড গত ৩০ জুন সমাপ্ত ২০২১ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের বৈঠকে সর্বশেষ হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদনের পর তা প্রকাশ করা হয়।

সর্বশেষ হিসাববছরে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি ২২ পয়সা লোকসান হয়েছে। আগের বছর শেয়ার প্রতি আয় হয়েছিল ৬৭ পয়সা। গত ৩০ জুন ২০২১ শেষে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৪ টাকা ২৬ পয়সা। আগামী ২০ ডিসেম্বর ডিজিটাল প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে ব্যাংকটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ১৪ নভেম্বর।

শাইনপুকুর সিরামিকস: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি শাইনপুকুর সিরামিকস লিমিটেড গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। আলোচিত বছরের জন্য কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ২.৫০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে।

আজ বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদের বৈঠকে সর্বশেষ হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদনের পর তা প্রকাশ করা হয়। কোম্পানি সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে। সর্বশেষ হিসাববছরে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ঊচঝ) হয়েছে ৩২ পয়সা। আগের বছর ইপিএস হয়েছিল ২১ পয়সা।

গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য ছিল ৩০ টাকা ৬৩ পয়সা। আগামী ২৩ ডিসেম্বর ডিজিটাল প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে ব্যাংকটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ২২ নভেম্বর।

Check Also

down trend

টানা পতনে বিনিয়োগকারীদের ১৫ হাজার কোটি টাকা হাওয়া ! ২৬ নভেম্বর ২০২১

টানা পতনে বিনিয়োগকারীদের ১৫ হাজার কোটি টাকা হাওয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x
Skip to toolbar